বুধবার, ২১ এপ্রিল ২০২১, ০৯:০৫ অপরাহ্ন

শিরোনাম
গোপালগঞ্জে ৩০ বছর ধরে বদ্ধ খাল উন্মুক্ত হলো জয়পুরহাটে মাইক্রোবাসের সাথে ট্রাক্টরের মুখোমুখি সংঘর্ষে এক শ্রমিকের মৃত্যু, আহত ৭ নড়াইলে সরকারি খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ৫৮ বস্তা চাল কালো বাজারে বিক্রির সময় জব্দ রাণীশংকৈলে কৃষকের কাছ থেকে গম সংগ্রহ করতে আনুষ্ঠানিক ভাবে লটারি  ভ্রাম্যমান আদালতে ৫ জনকে রাণীশংকৈলে জরিমানা    নড়াইলে ক্লিনিক মালিক ও চিকিৎসকের বিরুদ্ধে  থানায় মামলা জয়পুরহাটে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে অনুদান বিতরণ রামুর রাংকুটে বাংলাদেশ চ্যারিটেবল সংঘ হাসপাতালের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধনকালে এমপি কমল : স্বাস্থ্যসেবায় কক্সবাজার-রামু আরো একধাপ এগিয়ে যাবে নড়াইলের বিভিন্ন এলাকায় পানির ও জলের  হাহাকার  নড়াইলে মহিলার ক্ষতবিক্ষত পচালাশ উদ্ধার নড়াইলে ছোট ভাইয়ের হাতে পুলিশের এস আই বড় ভাই  খুন জয়পুরহাটে গৃহবধূ ধর্ষনের অভিযোগে গ্রেপ্তার ১ নড়াইলের পল্লীতে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া-৬ নারী আহত করোনা মহামারী থেকে জাতিকে রক্ষায় সরকার আন্তরিক ভাবে কাজ করছে- হুইপ স্বপন নড়াইলে সর্বাত্মক লকডাউনে শতাধিকমামলা, সাড়ে ৩ লাখ টাকা জরিমানা জয়পুরহাটে করোনা সমন্বয় সভায় হুইপ স্বপন গোবিন্দগঞ্জে বাড়ির মধ্যে থাকা পানির ট্যাঙ্ক এ পড়ে দুইজনের মৃত্যু গোবিন্দগঞ্জ পৌরবাসীর সুবিধার্থে আর সি সি গোবিন্দগঞ্জ থেকে ধান কাটতে ৩৩ কৃষি শ্রমিক গেল কুমিল্লা রাণীশংকৈলে ৬০ বছরের বৃদ্ধা ইউএনও’ র কাছে হুইল চেয়ার পেয়ে খুশি 
কুড়িগ্রামে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস স্থবির জীবনযাত্রা

কুড়িগ্রামে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস স্থবির জীবনযাত্রা

রুহুল আমিন রুকু, কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামে শীতের তীব্রতা ক্রমেই বেড়েই চলেছে। সেই সাথে দেখা দিয়েছে ঘন কুয়াশা আর হিমেল ঠান্ডা হাওয়া। বিকেল থেকে সকাল ১০টা পর্যন্ত শৈত্যপ্রবাহে কাহিল এ জনপদের মানুষ। গত দুদিন ধরে দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বিরাজ  করছে কুড়িগ্রামে। ফলে শিশু, বৃদ্ধ ও  প্রতিবন্ধী লোকজন রয়েছে চরম বিপাকে।
রবিবার সকালে কুড়িগ্রামে ও তেতুলিয়ায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। প্রচন্ড কনকনে ঠান্ডায় বিপাকে পরেছে ছিন্নমুল মানুষ। কৃষি শ্রমিক ও সর্বনিম্ন আয়ের সাথে যুক্ত শ্রমজীবীরা কনকনে ঠান্ডা আর ঘন কুয়াশার মধ্যে নেমে পরেছে উপার্জনের কাজে। ফলে নাকাল অবস্থা দিনমজুর ও খেটে খাওয়া মানুষজনের। শহরের উপকণ্ঠে, বাঁধের রাস্তায় এবং চরাঞ্চলে বসবাসরত মানুষজন তীব্র ঠান্ডায় অসহায়ভাবে জীবন যাপন করছে। একদিকে কাজের সংকট অপরদিকে মাটির বিছানায় সন্তানদেরকে নিয়ে জুবুথুবু অবস্থায় কাটছে তাদের দিন।
নদী ভাঙনের শিকার রিকসা চালক ইব্রাহিম আলী বর্তমানে কুড়িগ্রাম রেলওয়ে স্টেশনে খোলা জায়গায় প্লাস্টিকের বস্তা টানিয়ে ঝুপড়ি ঘরে সন্তানদের নিয়ে আশ্রয় নিয়েছেন। আক্ষেপ করে তিনি জানালেন, হামাকগুলাক কাঁইয়ো দেখে না। সরকার বলে জায়গা দেয়। কিন্তু মেম্বর-চেয়ারম্যানরা কোন খোঁজখবর নেয় না।
সদর উপজেলার যাত্রাপুর ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান রহিম আহমেদ রিপন জানান, কুড়িগ্রামে মাঝারি শৈত প্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পরেছে। সরকারিভাবে যেসব শীতবস্ত্র দেয়া হয়; সেটিও অপ্রতুল। মধ্যবিত্ত আর নিম্ন বিত্ত মানুষদের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে শীতবস্ত্রের মূল্য হ্রাস করার দাবী জানান তিনি।
কুড়িগ্রামের রাজারহাট কৃষি আবহাওয়া অফিসের পর্যবেক্ষক সুবল চন্দ্র সরকার জানান, রবিবার সকালে কুড়িগ্রাম ও তেতুলিয়ায় সর্বনিন্ম তাপমাত্রা ছিল ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। চলতি মাসে তাপমাত্রা আরো কমতে পারে বলে তিনি জানান।
এদিকে জেলা ত্রাণ ও পূণর্বাসন কর্মকর্তা আব্দুল হাই সরকার জানান, জেলার জন্য বরাদ্দ ৩৫ হাজার পিচ কম্বল ৯ উপজেলায় বিতরণ হয়েছে। এছাড়াও মন্ত্রণালয় হতে ৬লাখ করে ৯টি উপজেলায় ৫৪লাখ টাকা শীতবস্ত্র ক্রয়ের জন্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। শুকনা খাবার বরাদ্দ মজুদ রয়েছে ৯হাজার প্যাকেট এবং শীত মোকাবেলায় হতদরিদ্রের জন্য আরো এক লাখ কম্বল বরাদ্দ চাওয়া হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2020 nbnews71.com
Design & Developed BY NB Web Host