কুড়িগ্রামে পুলিশের তৎপরতায় যাত্রীদের অতিরিক্ত ভাড়া ফেরত

রুহুল আমিন রুকু, স্টাফ রিপোর্টারঃ
সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী দূরপাল্লার যাত্রীবাহী বাস চালু হওয়ার প্রথম দিনে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত, বাসগুলোতে আসন সংখ্যার অর্ধেক যাত্রী পরিবহন এবং অতিরিক্ত ভাড়া আদায় বন্ধ করতে দূরপাল্লার বাসে অভিযান পরিচালনা করেছে কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশ। সোমবার (২৪ মে) রাত ৯ টার দিকে জেলা শহরের কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনালে কুড়িগ্রাম থেকে ছেড়ে যাওয়া দূরপাল্লার যাত্রীবাহী বাসে এই অভিযান চালায় পুলিশ। সোমবার রাতে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা যায়, কুড়িগ্রাম থেকে ছেড়ে যাওয়া দূরপাল্লার বাসগুলোর গতিরোধ করে যাত্রীসংখ্যা যাচাই, যাত্রীদের মাস্ক পরিধান নিশ্চিতকরণের পাশাপাশি যাত্রীদের সাথে কথা বলে তাদের কাছে নেওয়া ভাড়ার পরিমাণও যাচাই করছে পুলিশ। এসময় বেশ কিছু বাসে যাত্রীদের কাছে নেওয়া অতিরিক্ত ভাড়া ফেরত দিতে বাধ্য করে পুলিশ। পুলিশের এমন তৎপরতায় সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন যাত্রীরা। এসময় জেলা বাস মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। জেলার ভূরুঙ্গামারী উপজেলা থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওয়ানা হওয়া হামিদুল নামে এক যাত্রী জানান, তার কাছে সিঙ্গেল সিটের ভাড়া ১৩শ’ টাকা নেওয়া হয়েছে। পুলিশকে এ তথ্য জানানোর পর তাকে ১শ টাকা ফেরত দেয় বাসের সুপারভাইজার। হামিদুল বলেন,‘ এটা পুলিশের অনেক ভালো উদ্যোগ। এতে করে যাত্রী হয়রানী বন্ধ হবে।’ নাগেশ্বরী থেকে ছেড়ে আসা একটি বাসে ঢাকা যাচ্ছিলেন একই পরিবারের দুই নারী মরিয়ম ও আইরিন আক্তার। পুলিশের জিজ্ঞাসায় তারা জানান, তাদের কাছে দুই আসনের ভাড়া নেওয়া হয়েছে তিন হাজার টাকা। এ সময় উপস্থিত পুলিশ কর্মকর্তা উষ্মা প্রকাশ করে বাসের সুপারভাইজারকে অতিরিক্ত টাকা ফেরত দিতে বলেন। পরে সুপারভাইজার ওই নারীদেরকে এক হাজার টাকা ফেরত দেন। অধিকাংশ বাসেই এমন চিত্র দেখা গেছে। তবে যাত্রীদের অভিযোগের প্রেক্ষিতে অতিরিক্ত ভাড়া ফেরতের ব্যবস্থা নেয় পুলিশ। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উৎপল রায়ের নেতৃত্বে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন কুড়িগ্রাম সদর থানার ওসি খান মো. শাহরিয়ার, ইন্সপেক্টর (তদন্ত) গোলাম মর্তুজাসহ ট্রাফিক পুলিশের সদস্যরা। দূরপাল্লার বাস চালুর প্রথম দিনেই ভাড়া ও যাত্রীসংখ্যা নিয়ে অব্যবস্থাপনায় উপস্থিত   বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদকের নিকট অসন্তুষ্টি প্রকাশ করেন পুলিশ কর্মকর্তারা। আসন সংখ্যার অর্ধেক যাত্রী পরিবহন এবং ভাড়া নিয়ে ভোগান্তি দূর করতে প্রতিটি কাউন্টারে টিকিটের মূল্য তালিকা টানানোর নির্দেশনা দেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার উৎপল রায়। এছাড়াও কাউন্টারগুলোতে যাত্রী হয়রানী বন্ধে অভিযোগ জানানোর সুবিধার্থে সংশ্লিষ্ট থানার ওসির ফোন নাম্বারও প্রদর্শনের ব্যবস্থা রাখার নির্দেশনা দেন পলিশের এই কর্মকর্তা। বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক লুৎফর রহমান জানান, মঙ্গলবার (২৫ মে) থেকে পুলিশের নির্দেশনা মোতাবেক কাউন্টারগুলোতে টিকিটের মূল্য তালিকা টানানোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
মতামত দিন

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More