কুড়িগ্রাম জেলায় করোনা ৩৬ জনের দেহে শনাক্ত! সুস্থ ৪

রুহুল আমিন রুকু, কুড়িগ্রাম থেকে: কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন আরো দুই জন। এদের মধ্যে ১৮ বছরের এক যুবকের বাড়ী পৌরসভার কুটিপায়রাডাঙ্গা ভিতরকুটি গ্রামে।৫১ বছর বয়সী অপর ব্যাক্তির বাড়ী উপজেলার সন্তোষপুর ইউনিয়নের ধনীরপাড় হাইল্যাটারী গ্রামে। তারাও আগের দুই জনের মত ঢাকার করোনা আক্রান্ত এলাকা থেকে এসেছেন।এনিয়ে উপজেলায় কোভিট-১৯ পজেটিভ ব্যাক্তির সংখ্যা দাঁড়াল ৪ জনে। জানা যায়, উপজেলার অনেকেই ঢাকার গাজীপুরের জয়দেবপুরে রাজমিস্ত্রীর কাজ করেন। ভিতরকুটি গ্রামের আক্রান্ত ওই যুবক এবারে এস.এস.সি পরীক্ষা দিয়ে সেখানে গিয়ে তাদের সাথে কাজে যোগ দেয়। গত ১৭ এপ্রিল সে বাড়ী ফেরে। ৪ মে উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ তার নমূণা সংগ্রহ করে। ৯ মে বিকেলে তার ফলাফল পজেটিভ আসে। রাতেই উপজেলা প্রশাসন, স্বাস্থ্য বিভাগ ও পুলিশ আক্রান্ত যুবকের বাড়ী গিয়ে তা লকডাউন করে দেয়। এদিকে সন্তোষপুরের আক্রান্ত ওই ব্যাক্তি সন্তানকে নিয়ে চিকিৎসা করাতে ঢাকা যান। ৬ মে সেখানে ওই ব্যাক্তিসহ তার স্ত্রী, সন্তান ও ভাইয়ের নমূণা সংগ্রহ করা হয়। ৭ মে ওই ব্যাক্তির ফলাফল পজেটিভ আসে। ৮ মে তারা বাড়ী ফিরে বিষয়টি চেপে যান। খবর পেয়ে ৯ মে রাতেই উপজেলা প্রশাসন, স্বাস্থ্য বিভাগ ও পুলিশ আক্রান্ত ওই ব্যাক্তি ও তার ভাইয়ের বাড়ী গিয়ে লকডাউন করে দেয়।রবিবার দুপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবু বকর সিদ্দিক জানান, আক্রান্ত ২ ব্যাক্তিকে বাড়ীতে রেখে ব্যবস্থাপত্র দেওয়া হয়েছে। এর আগে নেওয়াশীর এগারমাথা হাতিরভিটা গ্রামের ৩০ বছরের একজন ও পৌরসভার পশ্চিম কুটিবাঘডাঙ্গা গ্রামের নারায়ণগঞ্জ ফেরত ২৫ বছরের এক যুবক করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলায় ১৪জন সুস্থ ১জন নাগেশ্বরী উপজেলায় ০৪জন চিলমারী উপজেলায় ২জন ফুলবাড়ী উপজেলায় ওসিসহ ৪ জন সুস্থ ১জন রৌমারী উপজেলায় ৩ জন সুস্থ ২জন উলিপুর উপজেলায় ১জন রাজারহাট উপজেলা ৩ জন ও ভুরুঙ্গামারী উপজেলায় ৩জন। মোট ৩৬ জন আক্রান্ত সুস্থ হয়েছেন ৪ জন। কুড়িগ্রাম সিভিল সার্জেন অফিস সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *