উখিয়ায় ১০ হাজার দু:স্থ পরিবারের ভিজিএফ’র চাল বিতরণে অনিশ্চয়তা

শ.ম.গফুর,উখিয়া(কক্সবাজার) প্রতিনিধি
কক্সবাজারের উখিয়ায় ১০ হাজার দু:স্থ-অসহায় পরিবারের জন্য বরাদ্ধকৃত ভিজিএফ (ভালনারেবল গ্রুপ ফিডিং) এর ২০০মে:টন চাউল বিতরণে চরম অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছে। উপকারভোগীর নামের তালিকা তৈরিতে প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার একপেশে সিদ্ধান্তের কারণে এ সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। এ নিয়ে উখিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ভিজিএফ উপকারভোগীর তালিকা স্থগিতসহ পুন: বরাদ্ধের নিমিত্তে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন।অভিযোগ উঠেছে, উখিয়া উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা সবেমাত্র উখিয়া উপজেলায় যোগদানের পর জনগণের নির্বাচিত প্রতিনিধিকে উপেক্ষা করে দ্বন্ধে জড়িয়ে পড়েছে। ভিজিএফ কার্ডের উপকারভোগীদের নামের তালিকা তৈরিতে হটকারী সিদ্ধান্ত নেওয়ায় দেখা দেয় আইনগত জটিলতা।অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, খাদ্য ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের অধীনে ভিজিএফ চাউল বিতরণের ১১ সদস্যের কমিটির সভাপতি পদাধিকার বলে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান। কিন্তু উখিয়া উপজেলায় ভিজিএফ কার্ড ও উপকারভোগীদের নামের তালিকা করার বিষয়ে কোন কিছু অবগত নন বলে জানিয়েছেন উখিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান (ভারপ্রাপ্ত) ছেনুয়ারা বেগম। প্রকল্প কর্মকর্তা মনগড়া ভাবে ১০ হাজার উপকারভোগীদের নামের তালিকা বিভাজন করায় সংক্ষুদ্ধ উপজেলা চেয়ারম্যান।এ ব্যাপারে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বলেন, একজন নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি হলেও উপজেলার ভিজিএফ কার্ড ও উপকারভোগীদের নামের তালিকা প্রণয়ন কোন সভা-সিদ্ধান্ত ছাড়া আইন বর্হিভূত ভাবে করা হয়েছে। যার ফলে সরকারের মহৎ ও সফল উদ্দেশ্য বাস্তবায়িত হবে না। ভিজিএফ কার্ড পূন: বরাদ্ধ ও উপকারভোগীদের তালিকা জরুরী ভিত্তিতে স্থগিতসহ কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের নিমিত্তে স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব বরাবর লিখিত অভিযোগ করার কথাও তিনি জানান। যার স্মারক নং- উচেকা/উখি/কক্স/২০১৮/১৮।এ বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযুক্ত উখিয়া উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা পবিত্র চন্দ্র মন্ডল সাংবাদিকদের বলেন, উপজেলার ভিজিএফ কার্ড ও উপকারভোগীদের নামের তালিকা স্থানীয় সংসদ সদস্যের পরামর্শক্রমে করা হয়েছে। এই কমিটির নেতৃত্বে রয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা। নিয়মতান্ত্রিক ভাবে ভিজিএফ কার্ডের উপকারভোগীদের নামের তালিকা বিভাজন করেছি।এ প্রসঙ্গে জানার জন্য উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: নিকারুজ্জামান চৌধুরী’র মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তিনি মোবাইল ফোন রিসিভ না করায় তাঁর বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

মতামত দিন

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More