উখিয়ায় খাদ্যদ্রব্য আটকঃপানবাজারে দোকান বন্ধ করে প্রতিবাদ সমাবেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক,উখিয়া,কক্সবাজারঃ

কক্সবাজারের উখিয়ার বালুখালী পানবাজারে অভিযান চালিয়ে মজুদ করা নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যসহ এক রোহিঙ্গাকে আটক করা হয়। আটক রোহিঙ্গা ক্যাম্প-৯ সি-২০ ব্লকের হোসাইন আহমদের ছেলে ইয়াছির হোসাইন(১৬)। পরে মুচলেকা দিয়ে আটক রোহিঙ্গাকে পিতার হাতে হস্তান্তর করা হয়।

রবিবার(৫ সেপ্টেম্বর) সকালে ক্যাম্প-৯ ‘র সিআইসি তানজিম আহমেদ’র নেতৃত্বে ৮এপিবিএন পুলিশের সহযোগিতায় টানা দু ঘন্টা এ অভিযান পরিচালনা করে পানবাজারে।

অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত করে ক্যাম্প-৯ ইনচার্জ তানজিম আহমেদ জানান,বালুখালী পানবাজার এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে অবৈধভাবে বেচাকেনার উদ্দেশ্যে মজুদ করা ৫০০ কেজি চাল,৫৪ কেজি চিনি,৪২লিটার সয়াবিন তেল,৪টি ওয়েট মেশিন, ১টি প্যাকিং মেশিন রাষ্ট্রের অনুকূলে জব্দ করা হয় এবং ১ জন এফডিএমএন সদস্যকে আটক করা হয়। পরে আটক রোহিঙ্গাকে মুচলেকার ভিত্তিতে পিতার নিকটা হস্তান্তর করা হয়।

অভিযান পরিচালনা করা এলাকায় সিন্ডিকেটের সদস্যরা তাদের দোকানপাটে ক্যাম্প সীমানা অতিক্রম করে বিনা অজুহাতে তল্লাশীর প্রতিবাদে দোকানপাট বন্ধ করে প্রতিবাদ সমাবেশ করে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সিআইসি জানান,বর্তমানে বালুখালী পানবাজার এলাকায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। যেকোনো অপ্রীতিকর পরিস্থিতি মোকাবেলায় সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

পানবাজারের স্থানীয় ব্যবসায়ী মোহাম্মদ হোছাইন, শাহ আলম নুর জানান,তাদের দোকান রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে অন্তত এক কিলোমিটার দুরত্বে পানবাজারে।সেখানে ক্যাম্প-৯ এর সিআইসি বিনা ওজরে তল্লাশী চালিয়ে ক্যাশ বক্স ভাংচুর,বন্ধ দোকানের তালা কেটে  নগদ টাকা ও চাল নিয়ে গেছে।পানবাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি হাজী আলী আহমদ ও সাধারণ সম্পাদক ডাঃ ফরিদুল আলম জানান,ক্যাম্প-৯ এর সিআইসি স্থানীয় ক্ষতিগ্রস্থ জনগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে বার-বার স্থানীয়দের ক্ষতি সাধন করে চলছেন এমন অভিযোগ ক্ষুদ্ধ কন্ঠে তুলে ধরেন।
অভিযানে ক্যাম্প-৯ সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ক্যাথোয়াইপ্রু মারমা ও ৮এপিবিএন পুলিশ সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More